মধুপুর পৌর শহর পরিছন্নতায় সাড়ে চার হাজার ডাস্টবিন বিতরণ

মধুপুর পৌর শহর পরিছন্নতায় সাড়ে চার হাজার ডাস্টবিন বিতরণ

প্রতিদিন প্রতিবেদক,মধুপুর: “যত্রতত্র ময়লা না ফেলি পরিস্কার পরিছন্ন মুক্ত পৌর শহর গড়ি”এ শ্লোগানে টাঙ্গাইলের মধুপুর পৌর শহরকে পরিস্কার পরিছন্ন রাখতে ডাস্টবিন সাড়ে ৪ হাজার ডাস্টবিন বিতরণ করা হয়েছে। মধুপুরে পৌর মেয়র আলহাজ্ব মো. সিদ্দিক হোসেন খান এর উদ্যোগে এবং পৌর সভার আয়োজনে মধুপুর পৌর শহরকে পরিস্কার পরিছন্ন রাখার লক্ষে শহরের বিভিন্ন স্থানে চার হাজার চারশত ডাস্টবিন বিতরণের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে।

সোমবার (৮ জুলাই) সকালে নগর পরিচালনা অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্প আইইউজিআইপি, এলজিইউডি প্রকল্পের আওতায় এবং বাংলাদেশ সরকার, এডিবি ও এএফডিবিএল এর অর্থায়নে সাড়ে চার হাজার ডাস্টবিন সরবরাহ করা হয়। জনবহুল এলাকার জন্য ১২০ লিটারের ৪০০টি, বাসাবাড়ির সামনে স্থাপনের জন্য ২০ লিটারের ৪ হাজার টি ডাস্টবিন সরবরাহ করা হয়। ডাস্টবিন গুলো শহরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে স্থাপনের লক্ষে বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন পৌর মেয়র সিদ্দিক হোসেন খান। বিতরণ কালে পৌর মেয়র বলেন, বাসাবাড়ির ময়লা আবর্জনা যত্রতত্র না ফেলে বিতরণকৃত ডাস্টবিনে ফেলার পরামর্শ দেন। পৌর মেয়র পৌরশহরকে আধুনিক ও যুগোপযোগী মডেল পৌর শহর হিসেবে গড়ে তোলার জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেন। তিনি আরও জানান, প্রতিদিন আমি ফজরের নামাজ শেষ করে মধুপুর পৌর শহরের বিভিন্ন সমস্যা দেখার জন্য পায়ে হেটে বিভিন্ন এলাকা পরিদর্শন করি, যদি কোন স্থানে ময়লা আবর্জনা যত্রতত্র পড়ে থাকতে দেখি তাৎক্ষনিক আমার পরিছন্ন কর্মীদের ফোন দেই এবং ডেকে এনে সেসকল ময়লা আবর্জনা সাথে সাথে অপসারণ করি। যত্রতত্র ময়লা আবর্জনা ফেলায় পরিবেশ দুষণ ও র্দুগন্ধ মুক্ত করার জন্য আমি শহরের বিভিন্ন স্থানে ও বাসাবাড়িতে ডাস্টবিন স্থাপনের সিদ্ধান্ত নেই। আমাদের সাবেক কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপির সার্বিক সহযোগিতায় তা আজ বাস্তবে পরিনত হয়েছে। এজন্য তিনি মধুপুর পৌর বাসীর পক্ষ থেকে ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপিকে অভিনন্দন ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। বিতরণ অনুষ্ঠানে প্যানেল মেয়র-১ ও ৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. জাকিরুল ইসলাম হক ফারুক, প্যানেল মেয়র -৩ ও সংরক্ষিত আসন ৪, ৫ ও ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোছা. মালেকা বেগম, ৭ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হারুন অর রশিদ, নির্বাহী প্রকৌশলী সাইফুজ্জামান তালুকদার, সহকারী প্রকৌশলী প্রদীপ কুমার দেবনাথ, সমাজ উন্নয়ন কর্মকর্তা সোনিয়া ইয়াসমিন, পৌর নির্বাহী কর্মকর্তার প্রধান সহকারী মো. শাহীন মিয়া, বিভিন্ন ওয়ার্ডের কাউন্সিলরসহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ এবং পৌরসভার বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা কর্মচারী ও সুবিধাভোগীরা উপস্থিত ছিলেন।

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840