সখিপুরে চারদিনেও তিন সন্তানের জননীর খোঁজ মিলেনি

সখিপুরে চারদিনেও তিন সন্তানের জননীর খোঁজ মিলেনি

প্রতিদিন প্রতিবেদক সখিপুর : সখিপুরে নিখোঁজের চারদিন পেরিয়ে গেলেও তিন সন্তানের জননী আর্জিনা ওরফে নার্জিনা বেগমের (৩৫) সন্ধ্যান দিতে পারেনি পুলিশ। গত ৯ অক্টোবর সখিপুর পৌরসভার ৯নম্বর ওয়ার্ড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিখোঁজ আর্জিনা ওরফে নার্জিনা বেগম বহুরিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের খামার চালা এলাকার জাহাঙ্গীর আলমের তালাক দেওয়া স্ত্রী। এদিকে মাকে হারিয়ে গত চারদিন ধরে আর্জিনার তিন সন্তান নাঈম হাসান (১২), জাকিয়া সুলতানা (১০), জান্নাত আরা (০২) এবং মা নাছিমা বেগম বার বার কান্নায় ভেঙে পড়ছে আর মূর্ছা যাচ্ছেন।

খাওয়া দাওয়া ছেড়ে সকলেই অসুস্থ হয়ে পড়েছে । এদিকে পুলিশ প্রশাসন বলছে আর্জিনাকে উদ্ধারে সবাত্বক চেষ্টা করা হচ্ছে।

পুলিশ ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, গত ৭ মাস আগে নিখোঁজ আর্জিনা বেগমের একই ওয়ার্ডের স্বামী জাহাঙ্গীর আলমের সঙ্গে তালাক হয়ে যায়।

এর পর থেকেই তিন সন্তানকে নিয়ে মায়ের সঙ্গেই থাকতো আর্জিনা। বাবা না থাকায় পরিবারের খরচ যোগাতে পৌরসভার ৯নম্বর ওয়ার্ডের বাদলের ফার্ম ও পেঁপে বাগানে দৈনিক মুজুরীতে কাজ শুরু করে আর্জিনা।

বেশ কিছুদিন ধরে প্রাক্তন স্বামী জাহাঙ্গীর আলম আর্জিনাকে পূনরায় বিয়ে করার বিষয়ে বারবার মুঠোফোনে যোগাযোগ করে। এক পর্যায়ে গত ৫ অক্টোবর দুপুরে প্রাক্তন স্বামী জাহাঙ্গীর আলম আর্জিনার মুঠোফোনে হুমকি দেয় পূন রায় তাকে বিয়ে না করলে প্রথমে আর্জিনাকে হত্যা করবে পরে নিজে আত্মহত্যা করবে।

এর চারদিন পর ৯ অক্টোবর সকাল সাড়ে ৬টার দিকে আর্জিনা বেগম প্রাক্তন স্বামী জাহাঙ্গীরের বাড়ির পাশেই বাদলের ফার্মে বকেয়া টাকা আনতে গিয়ে আর্জিনা আর বাড়ি ফিরে আসেনি। তার ব্যবহৃত মুঠোফোনটিও বন্ধ পাওয়া যায়।

ওইদিনই দুপুরে প্রাক্তন স্বামী জাহাঙ্গীর আলমও গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্নহত্যা করে। আর্জিনার পরিবারের ধারণা প্রাক্তন স্বামী জাহাঙ্গীর আর্জিনার মুঠো ফোনে দেয়া হুমকিই অবশেষে বাস্তবায়ন করেছে।

অনেক খোঁজাখুজির পর ১০ অক্টোবর সকালে নিখোঁজ আর্জিনার মা নাছিমা বেগম সখিপুর থানায় একটি ডায়েরি করেন। মা নাছিমা বেগম তার মেয়ে নার্জিনাকে হত্যা করে জাহাঙ্গীর নিজে আত্মহত্যা করেছে বলে দাবি করেন।

তিনি তার মেয়ের জীবিত কিংবা মৃত উদ্ধার চান।

সখিপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) বদিউজ্জামান জানান, আর্জিনা ওরফে নার্জিনাকে উদ্ধারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। তার ব্যবহৃত মুঠোফোন বন্ধ আছে সেটি খোলা পাওয়া গেলেই তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করা হবে।

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840