সংবাদ শিরোনাম:
মির্জাপুরে পুলিশ হেফাজতে এক ব্যক্তির মৃত্যু, আগুন জ্বালিয়ে সড়ক অবরোধ করে এলাকাবাসী টাঙ্গাইল পৌর ভবনের সামনে স্থাপিত জাতির জনকের ভাস্কর্য ভেঙ্গে ফেলার এক বছরেও তা প্রতিস্থাপন হয়নি মাদক বিক্রির দায়ে মহিলা লীগ নেত্রী বহিস্কার সখীপুরে কৃষি মেলার উদ্বোধন নাগরপুরে সামাজিক সম্প্রীতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত মধুপুরে বাল্য বিবাহ ও মাদক প্রতিরোধক বিষয়ক প্রশিক্ষণ ঘাটাইলে দায়িত্বে অবহেলার কারনে দুই শিক্ষককে অব্যাহতি ভূঞাপুরে আড়াই বছর পর ছাত্রলীগের কমিটি গঠন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হলেন ফজলুর রহমান খান জামিয়া আশরাফিয়া দারুল উলুম টাঙ্গাইল মাদ্রাসার আনুষ্ঠানিক ভাবে যাত্রা শুরু
কালিহাতীতে রেজুলেশন ছাড়াই স্কুলের গাছ বিক্রয়ে অনিয়ম

কালিহাতীতে রেজুলেশন ছাড়াই স্কুলের গাছ বিক্রয়ে অনিয়ম

মনির হোসেন কালিহাতী : কালিহাতী উপজেলার ইছাপুর শেরে বাংলা উচ্চ বিদ্যালয়ে কোনো রেজুলেশন ছাড়াই লাখ টাকার ১০টি গাছ বিক্রয়ে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। 

মসজিদের সৌন্দর্য বাড়াতে এসব গাছ কাটা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদের সভাপতি মো. নূরুল ইসলাম । 

বন বিভাগ ও মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগের  অনুমতি ছাড়াই গাছ কেটে নেওয়া হচ্ছে বলে নিশ্চত করেছেন টাঙ্গাইল জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মোছা. লায়লা বেগম।  

এলাকাবাসী জানায়, এক বিচারপতি’র ভাই বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি হওয়ায় এর প্রতিবাদ করতে কেউ সাহস পাচ্ছে না। 

বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা যায়, বিশাল বিশাল পুরনো গাছ কেটে দ্রুত সরিয়ে ফেলা হচ্ছে। এমনকি গাছের গোড়া খুঁড়ে উঠিয়ে গর্ত মাটি ফেলে ঢেকে দেওয়া হচ্ছে। 

বিদ্যালয়ের প্রধান আব্দুল মান্নান মোল্লা জানান, বিদ্যালয়ের গাছ কাটা’র বিষয়ে আমি কিছুই জানি না। এ বিষয়টি জানার পরপরই আমি প্রশাসনকে জানাই। তারা ব্যবস্থা নিয়েছেন। এই মুহুর্তে গাছ কাটা বন্ধ রয়েছে।  

বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি নূরুল ইসলাম জানান, গাছগুলা মসজিদের তাই মসজিদ পরিচালনা কমিটি গাছ কাটার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

কালিহাতী উপজেলা নির্বাহী অফিসার অমিত দেব নাথ জানান, বিষয়টি আমি জানার পর গাছ কাটাতে নিষেধ করেছি। এই মুহুর্তে গাছ কাটা বন্ধ আছে।

ইছাপুর গোরস্থান ও মসজিদ কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক হায়দার আলী তার ভাষায় জানান, এই গাছ গুলা আমার জানামতে স্কুলের। স্কুল যখন গাছগুলা লাগায় তখন এখানে মসজিদ ছিল না। 

এব্যাপারে ওই গ্রামের নাম প্রকাশে অনেচ্ছুক অনেকেই তাদের ভাষায় বলেন, গাছ মসজিদের না স্কুলের। সভাপতি একাই এই কাজ করতেছে।

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840