সংবাদ শিরোনাম:
মির্জাপুরে পুলিশ হেফাজতে এক ব্যক্তির মৃত্যু, আগুন জ্বালিয়ে সড়ক অবরোধ করে এলাকাবাসী টাঙ্গাইল পৌর ভবনের সামনে স্থাপিত জাতির জনকের ভাস্কর্য ভেঙ্গে ফেলার এক বছরেও তা প্রতিস্থাপন হয়নি মাদক বিক্রির দায়ে মহিলা লীগ নেত্রী বহিস্কার সখীপুরে কৃষি মেলার উদ্বোধন নাগরপুরে সামাজিক সম্প্রীতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত মধুপুরে বাল্য বিবাহ ও মাদক প্রতিরোধক বিষয়ক প্রশিক্ষণ ঘাটাইলে দায়িত্বে অবহেলার কারনে দুই শিক্ষককে অব্যাহতি ভূঞাপুরে আড়াই বছর পর ছাত্রলীগের কমিটি গঠন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হলেন ফজলুর রহমান খান জামিয়া আশরাফিয়া দারুল উলুম টাঙ্গাইল মাদ্রাসার আনুষ্ঠানিক ভাবে যাত্রা শুরু
মির্জাপুরে স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্ত ও সংখ্যালঘু পরিবারের উপর হামলা

মির্জাপুরে স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্ত ও সংখ্যালঘু পরিবারের উপর হামলা

প্রতিদিন প্রতিবেদক মির্জাপুর: মির্জাপুরে স্কুলছাত্রীকে উত্ত্যক্তের অভিযোগ করায় সংখ্যালঘু এক পরিবারের সদস্যদের পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার বিকেলে উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের থলপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী জানান, থলপাড়া গ্রামের অষ্টম শ্রেণির এক স্কুল ছাত্রীকে একই গ্রামের মোশারফ হোসেনের ছেলে বখাটে সজিব মিয়া (২৫) মাঝে মধ্যেই উত্ত্যক্ত করতেন।

সকালে স্কুলে যাওয়ার পথে ওই ছাত্রীকে তাদের বাড়ির পাশের রাস্তাতেই সজিব জোরপূর্বক তাঁর মোটর সাইকেলে উঠাতে চান। এতে ভয় পেয়ে ছাত্রীটি দৌড়ে বাড়িতে গিয়ে উঠে।পরে পরিবারের সদস্যরা একই গ্রামের মাতাব্বর বারেক মিয়াকে বিষয়টি জানান।

তিনি ঘটনাটি সজিবের পরিবারকে জানান।এদিকে উত্ত্যক্তের বিষয়ে পরিবারের সদস্যদের কাছে নালিশ করায় বখাটে সজিব ক্ষিপ্ত হন। তিনি ধারালো অস্ত্র নিয়ে বিকেলে ছাত্রীটির বাড়ি যান। সেখানে তিনি প্রথমে মেয়েটির বাবাকে মারতে থাকেন।

তা দেখে মেয়েটির চাচাতো দাদা এগিয়ে আসলে সজিব তাকে বেধড়ক পেটাতে থাকেন। ভয়ে তিনি দৌড়ে ঘরে ঢুকলে দরজা ভেঙে ঘর থেকে বের করে সজিব তাঁর গায়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করেন।

এতে তার ঘারের পাশে কেটে যায়। তিনি মেয়েটির দাদিকেও পিটিয়ে আহত করেন। এছাড়া বাবাকে মারতে দেখে মেয়েটির ফুপু এগিয়ে এলে তাঁকে সজিব মারপিট করেন।

তাছাড়া তাঁর কোলে থাকা তিন মাসের শিশুকে কোল থেকে কেড়ে নেন। অনেক আকুতি করলে বাচ্চাটিকে তিনি ফিরিয়ে দেন। মেয়েটির বাবা জানান, তাঁকে বেধড়ক পেটানো হয়। প্রাণ বাঁচাতে তিনি ঝিনাই নদ সাঁতরিয়ে অপর পাড়ে যান।

পরে বিষয়টি এলাকাবাসী জানতে পারে। সজিবের ভয়ে তাঁরা নৌকাযোগে নদ পার হয়ে প্রাণ বাঁচাতে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে বাড়িছাড়া রয়েছেন বলে জানান।

এ ব্যাপারে মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মিজানুল হক জানান, সন্ধায় মেয়ের বাবার অভিযোগ পাওয়ার পর বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখা হচ্ছে।

এ ঘটনায় মেয়ের বাবা বাদী হয়ে গতকাল সন্ধায় মির্জাপুর থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন।

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840