সংবাদ শিরোনাম:
নাগরপুরে জুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুুয়াড়ীসহ গ্রেফতার ১৫ টাঙ্গাইলে ফেনসিডিল ও নগদ অর্থসহ গ্রেফতার এক অবৈধ ড্রেজিংয়ের খেসারত ভেস্তে যাচ্ছে টাঙ্গাইল-তোরাপগঞ্জ সড়কটি মধুপুরে সুইট ফ্লাগ চাষ করে স্বাবলম্ভী মহিউদ্দিন টাঙ্গাইলে নারী ক্ষমতায়ন কর্মসূচি অর্জন কর্মশালা অনুষ্ঠিত ভূঞাপুরে এমপি ছোট মনিরের করোনা মুক্তি কামনায় দোয়া টাঙ্গাইলে বেসরকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কর্মচারী পরিষদের সম্মেলন অনুষ্ঠিত ঘারিন্দা ইউনিয়নে নৌকার মাঝি হলেন তোফায়েল আহমেদ মির্জাপুরে স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রস্তুতি কমিটি গঠন অধ্যক্ষ শাহাদতের হোসেন খানের আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল
মধুপুরে মাঠ দিবস ও কৃষক প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

মধুপুরে মাঠ দিবস ও কৃষক প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

আ: হামিদ মধুপুরঃ টাঙ্গাইলের মধুপুরে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট ফলিত গবেষণা বিভাগ ব্রি কর্তৃক আয়োজিত এবং কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর মধুপুর এর সার্বিক সহযোগিতায় সিএসও এবং প্রধান, ফলিত গবেষণা বিভাগ, ব্রি ডঃ মোঃ হুমায়ুন কবির এর সভাপতিত্বে মো: আনিছুর রহমান উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা মধুপুর এv উপস্হাপনায় সোমবার ১৭ আগষ্ট দুপুরে মাঠ দিবস ও কৃষক প্রশিক্ষণ কর্মশালা মধুপুর পৌর সভাস্থ অলিপুর গ্রামের সফল কৃষক  হারুনের বসত বাড়িতে অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত মাঠ দিবস ও কৃষক প্রশিক্ষন  কর্মশালা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট এর মহা পরিচালক ড. মোঃ শাহজাহান কবীর,  বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর ঢাকা অঞ্চল এর অতিরিক্ত পরিচালক কৃষিবিদ বিভূতি ভূষণ সরকার, কৃষিবিদ মোঃ আহ্সানুল বাসার, টাঙ্গাইল,ড.আমিনা খাতুন প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা,ব্রি, উক্ত অনুষ্ঠানে আরও   উপস্থিত ছিলেন- মধুপুর  পৌরসভার মেয়র মাসুদ পারভেজ, কৃষিবিদ মোঃ হুমায়ুন কবীর, সিএসও এবং প্রধান, ফলিত গবেষণা বিভাগ, ব্রি, কৃষিবিদ মাহমুদুল হাসান কৃষি কর্মকর্তা মধুপুর উপজেলা, ইলেকট্রিক এবং প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকগন উপস্হিত ছিলেন।

এসময় এলাকার কৃষক এবং কৃষাণীগন উপস্হিত ছিলেন। কৃষিবিদ গন কৃষকদের উদ্দেশ্যে বলেন- নতুন একটি ধানের বীজ ব্রি ৮২ আবাদে উৎসাহিত করেন। এই ব্রি ৮২ ধান অন্যান্য ধানের চেয়ে অধিক ফলন ও কম খরচে অল্প সময়ে বিঘা প্রতি ১৮ থেকে ২০ মন ধান ফলে এমনটাই আশ্বস্ত করেন কৃষিবিদগন।

এর আগে, মধুপুরে বন্যা ও করোনা পরিস্থিতিতে কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি তার সেচ্ছাধীন তহবিল থেকে ২৭৮টি পরিবারের মাঝে ৬ লক্ষ টাকা বিতরণ করা হয়। 

শুক্রবার (১৭ ই জুলাই) সকাল ১১ টায় মধুপুর উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে মধুপুর উপজেলা পরিষদ হল রুমে এই ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ অর্থ বিতরণ করা হয়।

মধুপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আরিফা জহুরা এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হন কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ ছরোয়ার আলম খান আবু। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শরিফ আহমেদ নাছির, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ষষ্ঠীনা নকরেক, উপজেলা সহকারী কমিশনার( ভুমি)  এম,এ করিম,

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা রুবিনা ইয়াসমিন সহ বিভিন্ন ইউনিয়নের  চেয়ারম্যান বৃন্দ। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা রাজীব আল রানা জানান ২৭৮ টি পরিবারের মাঝে ৬ লক্ষ টাকা বিতরণ করা হয়।

অনুষ্ঠান শেষে উপজেলা পরিষদের পক্ষ  থেকে মধুপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা রুবিনা ইয়াসমিন এর হাতে বাড়ি বাড়ি গিয়ে করোনা টেস্টের  জন্য একটি অত্যাধুনিক গাড়ির চাবি হস্তান্তর করা হয়।

আরো খবর পড়ুন মহামারি কোভিড-১৯ কে প্রতিরোধ করি,নারী ও কিশোরীর সুস্বাস্থ্যের অধিকার নিশ্চিত করি, এই প্রতিপাদ্য নিয়ে টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের আয়োজনে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস পালিত হয়েছে।

শনিবার (১১জুলাই) দুপুরে মধুপুর উপজেলা স্বাস্হ্য কমপ্লেক্সের হলরুমে দিবসটি উপলক্ষে আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো: মাজেদ আলী মিয়া-এর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, আউশনারা ইউপি চেয়ারম্যান মো: গোলাম মোস্তফা, সহকারী পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো: আ: মান্নান, প্রেসক্লাব মধুপুর এর সভাপতি মো: আ: হামিদ সহ অন্যান্যরা।

অনুষ্ঠানে স্বাস্হ্য ও পরিবার পরিকল্পনা খাতে মধুপুর ও ধনবাড়ী উপজেলায় আউশনারা ইউনিয়ন শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত  হওয়ায় আউশনাড়া ইউপি চেয়ারম্যান মো: গোলাম মোস্তফাকে পুরুস্কার বিতরণ করা হয়।

কর্মক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখায় বিভিন্ন ক্যাটাগরীতে ৫জন শ্রেষ্ঠ কর্মী ও ২টি প্রতিষ্ঠানকে সন্মাননা স্মারক ও সনদ তুলে দেওয়া হয়। সন্মাননা প্রাপ্ত শ্রেষ্ঠ ৫জন  হলেন  আউশনারা ইউনিয়নের পরিবার কল্যাণ সহকারী মাহমুদা সুলতানা মিতু,

পরিবার পরিকল্পনা পরিদর্শক আরিফুল ইসলাম সুমন, পরিদর্শিকা আশরাফুন্নাহার ধনবাড়ী ইউনিয়ন স্বাস্হ্য ও পরিবার কল্যান কেন্দ্র, উপসহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার রুবেল আহমেদ বীরতারা ইউনিয়ন,

দায়িত্ত প্রাপ্ত মো: রোকনুজ্জামান রনজু উপসহকারী কমিউনিটি  মেডিকাল অফিসার পাইস্কা ইউনিয়ন, বেসরকারী ২ টি প্রতিষ্ঠান হলো সুর্যের হাসি নেটওয়ার্ক, মধুপুর, স্বনির্ভর বাংলাদেশ ধনবাড়ী। 

উল্লেখ্য করোনাভাইরাসের সংক্রোমন রোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কারণে কর্মহীন হয়ে পড়া মধুপুর উপজেলার প্রায় চারশত কৃষকের মাঝে ধানবীজ বিতরণ করা হয়েছে।

কোভিড-১৯ এর কারণে সম্ভাব্য খাদ্য সংকট মোকাবেলায় মঙ্গলবার (২৪ জুন) উপজেলার বেলুটিয়া (দত্তবাড়ী) বাজার থেকে বায়ার ক্রপসায়েন্স লিমিটেডের উদ্যোগে এসব কৃষকদের মাঝে তিন কেজি করে উচ্চ ফলনশীল হাইব্রিড অ্যারাইজ এজেড ৭০০৬ ও অ্যারাইজ গোল্ড জাতের ধানবীজ বিতরণ করা হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, বায়ার ক্রপসায়েন্স লিঃ টাঙ্গাইল জেলার দায়িত্বে কর্মরত সিনিয়র টেরিটরি অফিসার কৃষিবিদ মো. একরামুল হক, উপসহকারি কৃষি কর্মকর্তা মো. ইব্রাহিম খলিল, আনিছুর রহমান ও মো. রফিকুল ইসলাম।

এরপূবের্ মধুপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) এম. এ করিম করোনাকালীন সময়ে দক্ষতার সহিত দায়িত্ব পালনের জন্য গত ১০ জুন ভূমি মন্ত্রনালয়ের সচিবের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা, অভিনন্দন ও ধন্যবাদ জানিয়ে চিঠি দিয়েছেন ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মাকছুদুর রহমান পাটওয়ারী।

চিঠিতে এ্যাসিল্যান্ডকে উদ্দেশ্য করে সচিব বলেন, আপনি জেলা প্রশাসক এবং উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নির্দেশনায় জনপ্রতিনিধি, সশস্ত্র বাহিনী, পুলিশ বিভাগ, স্বাস্থ্য বিভাগ ও নাগরিকদের সহায়তায় করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে অবিরাম, অন্তহীন গতিতে, জীবন বাজি রেখে যে ত্যাগ স্বীকার করেছেন তা এক অনন্য ও অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত।

ভূমি রাজস্ব প্রশাসনে আপনার আওতাধীন কানুনগো, সার্ভেয়ার, ইউনিয়ন ভূমি সহকারী/উপ সহকারী কর্মকর্তা, আপনার দপ্তরের অন্যান্য কর্মচারীসহ অহোরাত্র করোনা ভাইরাস বিস্তার রোধে সামাজিক দুরত্ব নিশ্চিতকরণ, গণসচেতনতা সৃষ্টি, অসহায় ও সঙ্কটাপন্ন মানুষের ঘরে-ঘরে মানবিক সহায়তা ও ত্রাণ পৌঁছে দেয়া, নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের বাজার দর নিয়ন্ত্রণ, মোবাইল কোর্ট পরিচালনাসহ বহুমুখী কার্যক্রম পরিচালনা করেছেন।

চিঠিতে এ্যাসিল্যান্ডকে আরও লেখা হয়, মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধারণ করে অবিশ্রান্ত ঝর্ণাধারার মতো আপনি কর্মচঞ্চল। আপনার প্রত্যুৎপন্নমতিত্বের নিকট নিত্য নতুন সমস্যার তাৎক্ষণিক ও সহজ সমাধান সত্যিই বিস্ময়কর।

নিজের পরিবার পরিজনের মূল্যবান জীবনের দিকে না তাকিয়ে , মৃত্যুঝুঁকি নিয়ে কেবল জনগনের সেবা মানবতা ও মহানুভবতার পরিচয় দিয়ে অনন্য উদাহারণ সৃষ্টি করায় এ্যাসিল্যান্ডকে ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানানো হয়।

উল্লেখ্য, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) গত ১২ডিসেম্বরে যোগদান করে করোনা ভাইরাস বিস্তার রোধে সামাজিক দুরত্ব নিশ্চিতকরণ, গণসচেতনতা সৃষ্টি, অসহায় ও সঙ্কটাপন্ন মানুষের ঘরে-ঘরে মানবিক সহায়তা ও ত্রাণ পৌঁছে দেয়া, নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের বাজার দর নিয়ন্ত্রণ, সরকারী নির্দেশনা অমান্য ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে না চলায় ৫১টি মোবাইল কোর্ট পরিচালনার  মাধ্যমে ১৩৩ মামলায় ব্যক্তি ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে প্রায় ৫ লক্ষ ৬০ হাজার ৪০০টাকা জরিমানা আদায় সহ বহুমুখী কার্যক্রম পরিচালনা করেছেন।

এছাড়া বিদেশফেরতদের ও করোনা রোগীদের হোম কোয়ারান্টাইন নিশ্চিত করতে ছুটে বেড়িয়েছেন উপজেলার এক প্রান্ত থেকে অপর প্রান্তে। উপজেলাবাসীকে করোনামুক্ত পরিবেশে আনয়নের লক্ষ্যে তার অবিরাম, অন্তহীন গতিতে, জীবন বাজি রেখে ছুটে চলা এবং যে ত্যাগ স্বীকার তা অত্যন্ত প্রশংসনীয়। ভবিষ্যতে এ ধারা অব্যাহত থাকবে।

এরআগে দুস্থ ও অসহায় এক বৃদ্ধাকে নিজ হাতে খাবার খাওয়ালেন মধুপুর থানা অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) মো: তারিক কামাল।  

সারাদেশে প্রাণঘাতী মহামারী করোনা ভাইরাসে আতংকের মধ্যে পুলিশ বাহিনী তাদের কর্তব্য ও দায়িত্ব পালনে আরও বেশি তৎপর হয়ে উঠেছে। বাংলাদেশের ইতিহাসে পূর্বের সব রেকর্ড ভেঙে পুলিশ এখন মানবতার সেবার দিক দিয়ে প্রশংসার দাবিদার হয়েছে।

পুলিশ জনগনের বন্ধু এই স্লোগানটি বর্তমান পরিস্থিতিতে মানুষের মনে জায়গা করে নিয়েছে।

মঙ্গলবার (১৬ জুন) দুপুরে মধুপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি)মোঃ তারিক কামাল মধুপুর দৈনিক বাজার রোডে জনৈক এক দুস্থ বৃদ্ধাকে নিজ হাতে খাবার খাওয়ালেন।

একই সাথে বৃদ্ধার চিকিৎসার জন্য এস আই আল আমিন কে দিয়ে মধুপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করেন।

এরপূবের্ সমতল ভূমিতে বসবাসরত অনগ্রসর ক্ষুদ্র নৃ- গোষ্ঠির আর্ত সামাজিক ও জীবন মান উন্নয়নের লক্ষ্যে সমন্বিত প্রাণিসম্পদ উন্নয়ন প্রকল্প এর আওতায় মধুপুর উপজেলার ক্ষুদ্র নৃ গোষ্ঠীর মাঝে উন্নত জাতের ক্রসব্রিড বকনা গরু ও দানাদার খাদ্য সহ গৃহ নির্মাণ উপকরণ বিতরণ করা হয়েছে।

সোমবার ( ১৫ জুন) মধুপুর উপজেলা প্রাণি সম্পদ অফিসের আয়োজনে মধুপুরের কর্পোস খ্রীষ্ট্রি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে সামাজিক নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে ৬৮ টি হত দরিদ্র গারো আদিবাসী ক্ষদ্র নৃ- গোষ্ঠীর মাঝে এ গরু ও ১০০ স্কয়ার ফিট ডেউটিন, ৪ টি আরসিসি পিলার ও ১৯০ টি ইট বিতরণ করা হয়।

টাঙ্গাইলের অতিরিক্ত জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা: মো: আব্দুল মোত্তালেব এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রনালয়ের অতিরিক্ত সচিব কাজী ওয়াছি উদ্দিন।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন পরিকল্পনা মন্ত্রনালয়ের প্লানিং কমিশনের উপ প্রধান শাহীনূর রহমান,সমন্বিত প্রাণিসম্পদ মন্ত্রনালয়ের প্রকল্প পরিচালক ড. অসীম কুমার দাস,

প্রণি সম্পদ অধিদপ্তরের কৃত্রিম প্রজনন কার্যক্রম সম্প্রসারন ও ভ্রণ হস্তান্তর প্রযুক্তি বাস্তবায়ন প্রকল্পপরিচালক ড. মো: বেলাল হোসেন, মধুপুর উপজেলা প্রাণি সম্পদ কর্মকর্তা ডা: মো: হারুনর রশিদ, মধুপুর উপজেলা মহিলা ভ্সা চেয়ারম্যান যষ্ঠিনা নকরেক।

এসময় শোলাকুড়ী, অরনখোলা, রেীবাইদ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান গন ও মধুপর উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনয়র সহসভাপতি এ্যাডভোকেট ইয়াকুব আলী, ধনবাড়ী উপজেল আওয়ামীলীগের দপ্তর সম্পাদক ইকবাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

 

খবরটি শেয়ার করুন..

Comments are closed.




© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।
নির্মান ও ডিজাইন: সুশান্ত কুমার মোবাইল: 01748962840